তাজা খবর:

টঙ্গীতে অস্ত্র বোমাসহ এক শীর্ষ সন্ত্রাসী আটক                    কলাপাড়ার তিনদিনেও মা ও মেয়ের খোঁজ মেলেনি                    একই পরিবারে ১১ জন চোখের সমস্যা                    পরিবার পরিকল্পনা উপ-পরিচালকের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের                    মোহনপুরে ইয়াবাসহ দুইজন গ্রেপ্তার                    ডাবরী সীমান্তে বিএসএফের গুলিতে বাংলাদেশী নিহত                    গাছ কাটা নিয়ে ভ্যান চালককে পিটিয়ে হত্যা                    ঝিনাইদহে রিপন হত্যা মামলায় এক আসামীর মৃত্যুদন্ড                    রোহিঙ্গাদের ফেতর নেওয়ার বিষয়টি ভাওতাবাজি : এরশাদ                    কালীগঞ্জে ১শ কেজি গাঁজা ও ট্রাকসহ আটক ২                    
  • মঙ্গলবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০১৭, ১১ আশ্বিন ১৪২৪

যাদের ফ্রিজ নেই, তারা যেভাবে মাংস সংরক্ষণ করবেন

যাদের ফ্রিজ নেই, তারা যেভাবে মাংস সংরক্ষণ করবেন

আজকের রাত ফুরোলেই কাল পবিত্র ঈদুল আযহা। আল্লাহর সন্তুষ্টি লাভে একের পর এক পশু কোরবানি

চট্টগ্রামে অস্ট্রেলিয়া দলের বাসে পাথর ছুড়ল কে?

চট্টগ্রামে অস্ট্রেলিয়া দলের বাসে পাথর ছুড়ল কে?

বাংলাদেশের বন্দরনগরী চট্টগ্রামে অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেট দলকে বহনকারী বাসে পাথরের আঘাত লেগেছে বলে সে

তরমুজের বীজ খেলে পাবেন এই বিস্ময়কর উপকারিতাগুলো!

তরমুজের বীজ খেলে পাবেন এই বিস্ময়কর উপকারিতাগুলো!

আচ্ছা কে আমাদের শিখিয়েছে বলুন তো এটা ভাল নয়, ওটা ভাল নয়!

বাজার মাতাবে স্যামসাং গ্যালাক্সি এস ৯

বাজার মাতাবে স্যামসাং গ্যালাক্সি এস ৯

১৫ সেপ্টেম্বর থেকেই বাজারে এসে যাবে স্যামসাং গ্যালাক্সি নোট ৮। নোট এইট বাজারে

চট্টগ্রামে ১২ হাজার ৭৭৮টি মামলা নিষ্পত্তি

এফএনএস (মোঃ আবদুল ওয়াদুদ; চট্টগ্রাম) :

20 Aug 2017   08:26:00 PM   Sunday BdST
A- A A+ Print this E-mail this
 চট্টগ্রামে ১২ হাজার ৭৭৮টি মামলা নিষ্পত্তি

চট্টগ্রামে গত ৬ মাসে ১২ হাজার ৭শ’৭৮টি মামলা নিষ্পত্তি হয়েছে। মুখ্য বিচারিক হাকিমের অধীনে ১৩ আদালতে ওই মামলাগুলো নিষ্পত্তি হয়। এতে জানুয়ারি থেকে জুলাই পর্যন্ত এ মামলা নিষ্পত্তির সাথে সাথে সাক্ষ্য গ্রহণ করা হয়েছে ১৪ হাজার ২শ’৫১ জনের। এরপর প্রতি মাসে গড়ে সাক্ষ্য গ্রহণ করা হয়েছে ২ হাজার ৩৫ জন সাক্ষীর। শনিবার বিকালে চট্টগ্রাম আদালত ভবনে অনুষ্ঠিত পুলিশ ম্যাজিস্ট্রেসি কনফারেন্স থেকে এসব তথ্য উঠে এসেছে। এ কনফারেন্সে জামিনপ্রাপ্ত আসামি পলাতক হলে জামিনদারদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণেরও সুপারিশ করা হয় জেলা পুলিশের পক্ষ থেকে। আবার পুলিশের বিরুদ্ধেও অভিযোগের নানা বিষয় উঠে আসে। অপরদিকে মুখ্য মহানগর হাকিম আদালতেও সকালে একই সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। এতে সিএমএম একিউএম নাছির উদ্দিন তাঁর বক্তব্যে বলেন, পরোয়ানা তামিলে পুলিশকে আরো আন্তরিক হতে হবে। বিকেলের কনফারেন্সে সভাপতির বক্তব্যে মুখ্য বিচারিক হাকিম মুন্সী মোহাম্মদ মশিয়ার রহমান বলেন, জুলাই মাসে সাক্ষীদের কাছে মোট ২ হাজার ৮শ’২৭টি প্রসেস ইস্যু করা হয়। এর মধ্যে ১ হাজার ৪শ’৪৩টি প্রসেস রির্টান আসে। আবার ১ হাজার ৩শ’৯১টি ইস্যুকৃত সাক্ষীর প্রসেস রির্টান আসেনি। প্রসেস রির্টানের হার ৫১ শতাংশ। সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মাহমুদুল হাসান তাঁর বক্তব্যে বলেন, মোটরযান আইনের অধীনে দায়েরকৃত মামলাসমূহে প্রায় সময় সাক্ষীর নাম উল্লেখ থাকে না। ফৌজধারী কার্যবিধির ২০৪(২) ধারার বিধানমতে প্রসিকিউশন রিপোর্টে সাক্ষীদের নামের তালিকা থাকা আবশ্যক। সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট হোসেন মোহাম্মদ রেজা তাঁর বক্তব্যে বলেন, কোন একটি ঘটনা ঘটার পরপরই যত দ্রুত সম্ভব সাক্ষীদের জিজ্ঞাসাবাদ করে ফৌজদারী কার্যবিধির ১৬১ ধারার বিধানমতে তাদের জবানবন্দি গ্রহণ করা জরুরি। ফৌজদারী কার্যবিধির ১৬৫(৫) ধারার বিধানমতে জব্দতালিকা তৈরী করে দায়িত্বপ্রাপ্ত সংশ্লিষ্ট ম্যাজিস্ট্রেটের নিকট তা উপস্থাপনের বাধ্যবাধকতা রয়েছে। আসামিকে আটকের ২৪ ঘন্টার মধ্যে আদালতে উপস্থাপন করা হচ্ছে না। এ ধরণের স্পর্শকাতর বিষয়ে কোন প্রকার ছাড় দেওয়ার সুযোগ নেই। ফৌজদারী কার্যবিধির ১৬৭ ধারা অনুযায়ী রিমান্ড আবেদনের ক্ষেত্রে সুপ্রীম কোর্টের নির্দেশনা মতে সি ডি প্রেরণ ও দ্রুততম সময়ের মধ্যে প্রতিবেদন দাখিলের বিষয়টি অনেক ক্ষেত্রে অনুসরণ করা হচ্ছে না। জেলা পুলিশ সুপার নুরে আলম মিনা বলেন, চট্টগ্রাম সকল থানার অফিসার ইনচার্জগণকে আদালতের আদেশ সঠিকভাবে পালন এবং নিরপেক্ষভাবে তদন্তকার্য সম্পাদন করতে হবে। থানাগুলোতে পড়ে থাকা সিংহভাগ গ্রেফতারি পরোয়না ভুক্ত পলাতক আসামি জামিনে গিয়ে বিদেশে পালিয়ে গেছে। জামিনে গিয়ে পলাতক আসামিদের জামিনদারদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের প্রয়োজন আছে। এদিকে সম্মেলনের বক্তব্য অনুযায়ী গুরুতর আহত করার মামলায় রক্ত মাখা ভিকটিমের কাপড় চোপড় জব্দ করতে হবে। আগুনে পোড়ার মামলায় আগুনে পোড়া ছাইসহ বিভিন্ন আলামত জব্দ করার সুযোগ রয়েছে। জেলার বিভিন্ন স্পটে পুলিশ চেক পোস্টে তল্লাশির সময় পুলিশ সদস্যরা পরিচয়পত্র দেখাতে অস্বীকার করেন। সাদা পোশাকের সাধারণ মানুষ দিয়ে দেহ তল্লাশী করে। এগুলো পুলিশের দুর্নাম সৃষ্টি করে। সভায় পুলিশ সদস্যদের অনৈতিক কাজে জড়িয়ে পড়ার অভিযোগও উঠে। অভিযোগের বিষয়ে জেলা পুলিশ কর্তৃপক্ষ জানান, পত্রিকার সংবাদ, অভিযোগকারীর অভিযোগ, আদালতের আদেশে কিংবা গোয়েন্দাসূত্রে পাওয়া তথ্যের ভিত্তিতে পুলিশ সদস্যদের বিরুদ্ধে উঠা অভিযোগ গুরুত্বের সহিত তদন্ত করে ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে। এরপর অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ার পর অনেক পুলিশ সদস্যকে চাকুরি থেকে বরখাস্ত করা হয়েছে এমন নজীর অনেক। এ প্রসঙ্গে এসপি নুরে আলম মিনা জানান, অভিযোগ সততার সাথে গুরুত্ব দিয়ে তদন্ত করে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। দায়িত্ব নেওয়ার পর একাধিক পুলিশ সদস্যদের বিরুদ্ধে শাস্তিমুলক ব্যবস্থা নিয়েছি। সভায় জেলার বিভিন্ন থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তাগণ তাদের বক্তব্য বলেন, একজন ভিকটিমকে আসামিরা পায়ের রগ কেটে দিয়েছে। কিন্তু সার্টিফিকেটে সাধারণ জখম উল্লেখ করেছেন কর্তব্যরত ডাক্তার। সময় মত ডাক্তারি সার্টিফিকেট না পাওয়ায় তদন্ত ব্যাহত হয়। থানায় বিভিন্ন মামলার জব্দ করা আলামতগুলোও নষ্ট হয়ে যাচ্ছে। বিভিন্ন থানার অফিসার ইনচার্জগণ তাদের সমস্যাগুলি তুলে ধরে বলেন, ভিকটিমদের জখমী সনদ সরবরাহে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের বরাবর জখমীদের মেডিকেল সার্টিফিকেটের (এম/সি) জন্য চাহিদাপত্র পাঠানো হয়। এরপর কিন্তু বারবার যোগাযোগ করা হলেও এম/সি প্রদান করা হচ্ছে না। এসময় এক অফিসার ইনচার্জ বলেন, সন্দ্বীপ থানার মামলা নং ৭(১২)১৬ এ ভিকটিমের ইনজুরি সার্টিফিকেট প্রেরণের জন্য চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ কর্তৃপক্ষকে বারবার জানিয়েও কাজ হয়নি। এ বিষয়ে উক্ত হাসপাতালের পক্ষে উপস্থিত প্রতিনিধি ডাঃ রাজীব পালিত জখমীর এম/সি’র বিষয়ে সরাসরি তার সাথে যোগাযোগ করার জন্য বলেন। এসময় সভায় অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন সিভিল সার্জন, অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট, পরিচালক র‌্যাব-৭এর প্রতিনিধি, পুলিশ সুপার রেলওয়ের প্রতিনিধি, চমেক হাসপাতালের প্রতিনিধি, অতিরিক্ত চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট, চট্টগ্রাম জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপারবৃন্দ, চট্টগ্রাম জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি, পাবলিক প্রসিকিউটর ও সকল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তাবৃন্দ। কনফারেন্সে বক্তারা বলেন, জুলাই মাসের শুরুতে চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে মামলা বিচারাধীন ছিল ২১ হাজার ৬শ’৩৮টি। ওই মাসেই দায়ের হয় ৪ হাজার ৫শ’৯৮ টি। আর নিষ্পত্তি হয়েছে ২ হাজার ৪শ’৩৩ টি। সর্বশেষ ৩১ জুলাইয়ে বিচারাধীন ছিল ২৩ হাজার ৮০৩ টি মামলা।


সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
 
A- A A+ Print this E-mail this
আপনার পছন্দের এলাকার সংবাদ
পড়তে চাই:
Fairnews24.com, starting the journey from 2010, one of the most read bangla daily online newspaper worldwide. Fairnews24.com has the highest journalist among all the Bangladeshi newspapers. Fairnews24.com also has news service and providing hourly news to the highest number of online and print edition news media. Daily more then 1, 00,000 readers read Fairnews24.com online news. Fairnews24.com is considered to be the most influencing news service brand of Bangladesh. The online portal of Fairnews24.com (www.fairnews24.com) brings latest bangla news online on the go.
৪৮/১, উত্তর কমলাপুর, মতিঝিল, ঢাকা-১০০০
ফোন : +৮৮ ০২ ৯৩৩৫৭৬৪
E-mail: info@fns24.com
fnsbangla@gmail.com
Maintained by : fns24.net